Home News ভারতে শুল্ক বৃদ্ধি প্রত্যাহার করার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে কথা বলবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

ভারতে শুল্ক বৃদ্ধি প্রত্যাহার করার জন্য প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে কথা বলবেন ডোনাল্ড ট্রাম্প।

ইন্দো-মার্কিন ঠান্ডা যুদ্ধে সরাসরি হস্তক্ষেপ করলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প |

Image result for america donald trump
newsmulti.com

শুল্ক নিয়ে ইন্দো-মার্কিন ঠান্ডা যুদ্ধের সূত্রপাত মাসের প্রথমদিকেই হয়েছে |এ বার এই বিষয়ে সরাসরি হস্তক্ষেপ করলেন ডোনাল্ড ট্রাম্প |বিষয়টি নিয়ে ভারতীয় প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে কথা বলবেন বলেও জানিয়েছেন প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প। তার মতে ,এই ধরণের শুল্ক বৃদ্ধি একদম উচিত না ,তা প্রত্যাহার করতে হবে |ভারত থেকে এটাই বলা হয়েছে অন্যান্য দেশের তুলনায় এই শুল্ক হার তুলনামূলক ভাবে কম |

Web content writing training Online

১৫ জুন ভারত ২৮ টি পণ্যের উপর শুল্ক বৃদ্ধি করে ভারত, অর্থাৎ আমেরিকা আমদানি করলে এই ২৮টি পণ্যের উপর বেশি হারে শুল্ক দিতে হবে |আমেরিকার শুল্ক বৃদ্ধির জবাব হিসেবে এই পদক্ষেপটি নেওয়া হয়েছে বলে অনেকের ধারণা |এতেই ক্ষুব্ধ আমেরিকা, তাই শুল্কবৃদ্ধিই তুলে নেওয়া উচিত বলে মনে করেন ট্রাম্প।
শুক্রবার থেকে জাপানের ওসাকায় শুরু হচ্ছে জি-২০ সম্মেলনে|এই সময়ের মধ্যেই ইন্দো-মার্কিন বৈঠক হয়ে কথা |

আমেরিকার থেকে ভারত যে সব পণ্য আমদানি করে, উন্নয়নশীল দেশ হিসেবে এবং সবচেয়ে বেশি আমদানিকারী হিসেবেঅনেক ক্ষেত্রেই ছাড় পেত ভারত।স্টিল এবং অ্যালুমিনিয়ামের ক্ষেত্রে আমদানি শুল্ক ছিলই না। কিন্তু গত ১ জুন থেকে সেই সুবিধা তুলে নিয়ে এই দুই পণ্যের উপর কর চাপিয়ে দেয় ওয়াশিংটন। শুধু ভারতই নয়, অধিকাংশ অন্যান্য দেশের ক্ষেত্রেও একই ভাবে শুল্ক বাড়ানো হয়, অথবা নতুন করে শুল্ক চাপানো হয়। জবাবে ভারত ও ২৮ টি পণ্যের শুল্ক বাড়িয়ে দেয় |নয়াদিল্লির এই সিদ্ধান্তেই ক্ষুব্ধ আমেরিকা ,শুরু হয় ঠান্ডা যুদ্ধ |

Related image
newsmulti.com

বৃহস্পতিবার একটি টুইটে প্রেসিডেন্ট ট্রাম্প বলেন, ‘বহু বছর ধরে এমনিতেই আমেরিকার আমদানির উপর ভারত উচ্চ হারে শুল্ক চাপিয়ে রেখেছে। সম্প্রতি সেটা আবারও বাড়ানো হয়েছে। এটা মেনে নেওয়া যায় না এবং অবশ্যই এটা তুলে নেওয়া উচিত। আমি প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদীর সঙ্গে বিষয়টি নিয়ে কথা বলব।’’

বৈঠকের আগেই ভারতের উপর চাপ বাড়াতেই ট্রাম্পের এই কৌশলী টুইট বলেও মনে করছেন কূটনৈতিক মহলের একটা বড় অংশ। ওসাকায় জি-টোয়েন্টি সম্মেলনের ফাঁকে ভারত-মার্কিন দ্বিপাক্ষিক বৈঠকে এই বিষয়টি যে উঠবেই, তা আগে থেকেই আঁচ করা হয়েছিল | পরবর্তী পদক্ষেপ ভারতের কি হতে চলেছে তা শুক্রবার ওসাকায় জি-টোয়েন্টি সম্মেলন এর পর এ বোঝা যাবে |

100% Free Domain Hosting - Dreamhost banner

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

Check Also

২৩৩ কোটি ২১ লক্ষ ২৬ হাজার ১৪০ টাকা! ক্রিস্টির নিলামে এত দর কেন উঠল ডাইনোসরের?

কারণটা কি নেহাতই জিনিসটা দুষ্প্রাপ্য বলে? ১৯০২ সাল থেকে এখনও পর্যন্ত খোঁড়াখুঁড়ি করে সাকুল্…